জেনা দরকার ভার্চুয়াল রিয়েলিটি (vr) কি,কিছু গুরুত্বপূর্ণ তথ্য। পড়লে লাভ না হলেও ক্ষতি হবে না।

welcome to priyotunes

কেমন আছেন সবাই। আশাকরি আল্লাহতা*লার রহমতে সবাই ভাল আছেন।

আমি সুমন,
,
আজকের আলোচনা virtual reality নিয়ে। এ টি এখন সবার আলোচনায় আসছে। কিভাবে এর প্রসার করা যায়।সম্প্রতি google lievly নামে একটি চ্যাটিং সার্ভিস চালু করছে। প্রকৃত অর্থে বাস্তব নয় কিন্তু বাস্তবের চেতনা উদ্রেককারী বিজ্ঞান নির্ভর কল্পনা হচ্ছে ভার্চুয়াল রিয়েলিটি।
বর্তমানে বিজ্ঞানের কল্যাণে কল্পনাকে বাস্তবে রুপদান করতে পেড়েছ মানুষ।
আপনার কাছে পরিবেশ টি বাস্তব মনে হবে কিন্তু বাস্তব নয়।
এ র কিছু ধারনা ক্লিয়ার করব।
ভার্চুয়াল রিয়েলিটি ত্রিমাতৃক তৈরি করে অসম্ভব কাজকে সম্ভবপর করছে।
এ দিয়ে কী কি করা যায় এখন তা বলতেছি
১,এ দিয়ে আপনে চাদের মাটিতে হাটতে পারবেন।

২,মহাসারের নিজ দিয়ে ঘুরতে পাড়বেন।
৩,আকাশ দিয়ে উরতে পারবেন
৪,বাস্তবের মত গেইম খেলতে পারবেন।tv তে একিটা add দেয় দেখবেন tampalerun এর সাথে দৌড়ায়, আপনে এটিও করতে পারবেন।কিন্তু আপনার কাছে বাস্তবের মত মনে হবে।আসলে বাস্তব নয়।
৪,কল্পনার জগতে বিচরন করতে পারবেন।
এক কথায় সব পারবেন।

তাছাড়া এটি উন্নত দেশগুলিতে নানা ধরনের শিক্ষামুলক কাজে ব্যবহৃত হচ্চে।কিছু উদাহরণ,

১,শিশু শিক্ষায়
২,কার ড্রাইভিং প্রশিক্ষণ
৩,বিমান চালনার প্রশিক্ষন
৪,ডাক্তারি পেশায় প্রশিক্ষণ
৫,সেনাবাহিনীতে যুদ্ধজয় করার জন্য প্রশিক্ষণ
৬,মহাশূন্য এ অভিযান
৭,গেইমস তৈরিতে
৮,নগর উন্নয়ন
জেনে নিলাম কি কাজে এটি ব্যবহৃত হয়।
এ প্রযুক্তিয়তে কি কি উপাদান থাকে তা দেখে নেই।

★head Mounted Display
★Data glove
★ body suit
★ উচ্চমানের অডিও ব্যবস্থা
★রিয়েলিটি ইঞ্জিন ইত্যাদি।

এর প্রধান অসুবিধা হচ্ছে এর দাম অনেক বেশী। কিন্তু বর্তমানে বাংলাদেশর মত দরিদ্র দেশ গুলির কথা চিন্তা করে কম মুল্যে এর ব্যবস্থা করছে নানা ধরনের প্রতিসঠান।
শিগ্রই এটি আমাদের দেশে প্রবেশ করবে।

জানি না কত টুকু আপনাদের কে বুজাতে পেরেছি।
পোস্ট টি আমার নিজের জ্ঞ্যান থেকে এবং নিজের হাতে লেখা
…..

কোন ভুল হলে ক্ষমার দৃষ্টিতে দেখবেন
সবাইকে পোষ্টি পড়ার জন্য ধন্যবাদ। সকলেই ভালো থাকুন।

Add Comment

Skip to toolbar